রোমানিয়া ওয়ার্ক পারমিট চেক করার সহজ নিয়ম।

শেয়ার করুন

রোমানিয়া ওয়ার্ক পারমিট চেক করার নিয়ম সম্পর্কে বিস্তারিত জানুন আজকের পোস্টে। আপনাদের মধ্যে যারা রোমানিয়া জব অ্যাপ্লিকেশন করেছেন এবং চিন্তায় আছেন রোমানিয়া ওয়ার্ক পারমিট কিভাবে চেক করবেন? কিভাবে বুঝবেন আপনার কম্পানিটি আসল কিনা? তাদের জন্য আজকের পোস্টটি। এই পোস্টে আমরা রোমানিয়া ওয়ার্ক পারমিট চেক করার নিয়ম সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করবো।

রোমানিয়া ওয়ার্ক পারমিট চেক করার নিয়ম

রোমানিয়া ওয়ার্ক পারমিট চেক করার জন্য যেকোন ব্রাউজারের সার্চবারে romanian-companies.eu লিখে সার্চ করুন। তারপর সার্চ রেজাল্টে আসা প্রথম ওয়েবসাইটে প্রবেশ করুন। তাহলে এরকম একটি ইন্টারপেইজ দেখতে পাবেন।

রোমানিয়া ওয়ার্ক পারমিট চেক

এখন প্রথমে আপনাকে আপনার কোম্পানির নাম, রেজিস্ট্রেশন নাম্বার বা কোড নাম্বার দিয়ে সার্চ করতে হবে। এর জন্য ‘Search a company’ অপশনে আপনার কোম্পানি নাম, কোড, রেজিস্ট্রেশন নাম্বার বা CMP যেকোন একটি দিয়ে সার্চ করুন। তাহলে কোম্পানির ডিটেলস দেখতে পাবেন। যেমন:

  • Company Name
  • Fiscal Code
  • Registration No
  • EUID
  • Date of establishment
  • Country
  • City
  • Address
  • Phone ইত্যাদি।

তারপর আপনি যদি আরেকটু নিচের দিকে স্ক্রোল করেন তাহলে Map Localisation অপশনে Company employee status গুলো দেখতে পাবেন। অর্থাৎ কম্পানি কত সালে শুরু হয়েছে। কম্পানিতে কত সালে কত জন ওয়ার্কার ছিল। বর্তমানে কম্পানি Employee কত জন আছে ইত্যাদি।

রোমানিয়া ওয়ার্ক পারমিট চেক

এখন আপনি যদি আপনার ওয়ার্ক পারমিট ভিসা আরেকটু কনফার্ম হতে চান, তাহলে উপর থেকে 3 ডট অপশনে ক্লিক করুন। কোম্পানির সাপোর্ট নাম্বার, জিমেইল, হোয়াটসঅ্যাপ ইত্যাদি পেয়ে যাবেন। সেখানে আপনি কন্টাক্ট করে আপনার পাসপোর্ট নাম্বার বা কম্পানি CMP নাম্বার দিয়ে রোমানিয়া ওয়ার্ক পারমিট চেক করতে পারবেন।

তবে বলে রাখা ভালো, এখানে আপনাকে ইংরেজিতে চ্যাট করতে হবে। বাংলায় চ্যাট করলে তারা বুঝবে না। এক্ষেত্রে আপনি নিজে ইংরেজি জানলে তো ভালো। আর না জানলে যারা ইংরেজি জানেন তাদের দিয়ে চ্যাট করাতে পারেন। অথবা গুগল ট্রান্সলেটের সাহায্যে বাংলা থেকে ইংরেজিতে ট্রান্সলেট করে তথ্য আদানপ্রদান করতে পারেন।

রোমানিয়া ওয়ার্ক পারমিট সংক্রান্ত প্রশ্ন-উত্তরঃ

 প্রশ্নঃ রোমানিয়া ওয়ার্ক পারমিট পেতে কতদিন লাগে?

উত্তরঃ রোমানিয়া ওয়ার্ক পারমিট পেতে ৪ থেকে ৬ সপ্তাহ সময় লাগতে পারে।

 প্রশ্নঃ রোমানিয়া ওয়ার্ক ভিসার খরচ কত?

উত্তরঃ রোমানিয়া ওয়ার্ক ভিসার খরচ প্রায় ৮০$ থেকে ১৫০$ যেটি বাংলাদেশ টাকায় প্রায় ৯৩৮৮ টাকা থেকে ১৭৬০৩ টাকা।

প্রশ্নঃ রোমানিয়ায় চাকুরীর বয়সসীমা কত?

উত্তরঃ রোমানিয়ায় চাকুরীর বয়সসীমা সর্বনিন্ম ১৬ বছর।

আশাকরি, বুঝাতে পেরেছি কিভাবে খুব সহজে কম্পানি CMP নাম্বার, রেজিস্ট্রেশন নাম্বার বা কোড নাম্বার দিয়ে রোমানিয়া ওয়ার্ক পারমিট চেক করবেন। এরকম আরোও গুরুত্বপূর্ণ কনটেন্ট পেতে চোখ রাখুন আমাদের ওয়েবসাইটে।

আরো জানুনঃ

রোমানিয়া থেকে ইতালি কত কিলোমিটার এবং যাওয়ার উপায়।

হাঙ্গেরি ওয়ার্ক পারমিট চেক অনলাইন।

ইতালির নুলস্তা চেক করার নিয়ম জেনে নিন।

 

Similar Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *